মতলব দক্ষিণ প্রশাসনের হস্তক্ষেপে স্কুল ছাত্রীর বাল্য বিয়ে বন্ধ

স্টাফ রিপোর্টার
মতলব দক্ষিণ উপজেলা প্রশাসনের হস্তক্ষেপে ৯ম শ্রেণির ছাত্রী নিশি আক্তারের বাল্য বিয়ের সব প্রস্তুতি পন্ড হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল সামবার দুপুরে মতলব দক্ষিণ উপজেলার ঘোড়াধারী গ্রামের ফারুক মাস্টারে বাড়ীতে। স্কুল ছাত্রী নিশি আক্তার ঘোড়াধারী পিংরা বাজার হযরত শাহজালাল উচ্চ বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেণির একজন মেধাবী ছাত্রী।
জানা যায়, গতকাল সোমবার দুপুরে মতলব দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শাহিদুল ইসলামের হস্তক্ষেপে তার নির্দ্দেশে স্থানীয় চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফা, মতলব থানার উপ-পরিদর্শক জহিরুল ইসলাম সঙ্গীয় ৫ জন পুলিশ সদস্যকে সাথে নিয়ে বিয়ে বাড়িতে কনের বাবা আবুল হাসেম বকাউল, কনের মা রুমা বেগম বিদ্যালয় কমিটির সভাপতির কাছ থেকে বাল্য বিয়ে দিবে না এ সংক্রান্ত লিখিত অঙ্গিকার নিয়ে বিয়ের আয়োজন পন্ড করে দেন।
এ বিষয়ে মতলব দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাইিদুল ইসলাম জানান, বিদ্যালয়ের জেএসসি সার্টিফিকেট অনুযায়ী নিশি আক্তার ২০০৪ সালের ১৫ মে জন্ম গ্রহণ করে। সে আনুযায়ী তার বয়স ১৪ বছর ৮ মাস ১৫ দিন। বাল্য বিবাহ বন্ধের জন্য ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। বিয়ে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। পরে যদি তারা আইন অমান্য ও প্রতারণা করে, যদি পুনরায় বাল্য বিবাহ করে তাহলে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।