শাহরাস্তির গৃহবধূ কুহিনুর হত্যার মূল আসামি আটক


নোমান হোসেন আখন্দ
শাহরাস্তির ৩ সন্তানের জননী গৃহবধূ কুহিনুর আক্তারকে ঘরে ঢুকে কুপিয়ে হত্যাকারী মূল ঘাতক জহিরুল ইসলামকে চট্টগ্রাম থেকে আটক করেছে পুলিশ। শাহরাস্তি থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ শাহআলমের বিচক্ষন গতিশীলতায় ৮ দিনের মাথায় মূল ঘাতক জহিরুল ইসলাম (৩৮) আটক করতে সক্ষম হয় পুলিশ।
জানা যায়, শাহরাস্তি পৌরসভাধীন ১১নং ওয়ার্ডের ভাটুনীখোলা গ্রামের সোদি প্রবাসী আরিফুল ইসলামের স্ত্রী ও ৩ সন্তানের জননী কুহিনুর আক্তারকে গত ১৮ এপ্রিল গভীর রাতে একদল দুর্বৃত্ত তার বসতঘরে ঢুকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জখম করে। তার পুরো শরীরে ধারালো দায়ের ১০/১২ টি কোপের চিহ্ন রয়েছে। এতে তার মেয়ে বাধা দিলে তাকেও দুর্বৃত্তরা কুপিয়ে জখম করে। এছাড়া তারা আলমীরায় রাখা ১ লাখ ৬৫ হাজার টাকাও লুটে নেয়। পরে স্থানীয়দের সহযোগিতায় মা ও মেয়েকে স্থানীয় উয়ারুক মেডিল্যাব হাসপাতাল ভর্তি করা হয়। গৃহবধূ কুহিনুর আক্তারের অবস্থার অবনতি হওয়ায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও পরবর্তীতে মুমূর্ষ অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে লড়াই করে ২২ এপ্রিল ভোর সাড়ে ৪টায় তার মৃত্যু হয়।
এ বিষয়ে শাহরাস্তি থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ শাহআলম জানান, ৪ জনকে এজাহার নামীয় ও ৩/৪ জনকে অজ্ঞাতনামা দেখিয়ে মামলা হয়েছে। যার মামলা নং-১৮, তাং ১৯/৮/১৯ইং। তবে কি বিষয়ে হত্যাকা- ঘটেছে মূল আসামি জহিরুলকে রিমান্ডে এনে জিজ্ঞাসাবাদের পর হত্যাকা-ের মূল বিষয়টি উপস্থাপন করা যাবে।