বাগাদীতে দু’টি পরিবারকে গৃহ হস্তান্তর

চাঁদপুরে দ্বিতীয় পর্যায়ে ১২৪টি গৃহহীন পরিবারে ঘর হস্তান্তর করবো
……..জেলা প্রশাসক বেগম অঞ্জনা খান মজলিশ

স্টাফ রিপোর্টার
জেলা প্রশাসক বেগম অঞ্জনা খান মজলিশ বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন কোন মানুষ গৃহহীন থাকবে না। তাই তিনি সারাদেশে এ কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন। কাউকে গৃহ তৈরী করে দেয়া অনেক পুণ্যের কাজ। এটি একটি যুগান্তকারী পদক্ষেপ। গত রোববার (৯ মে) বিকেলে বাংলাদেশ এডমিনিস্ট্রেটিভ সার্ভিস এসোসিয়েশন চাঁদপুর জেলা শাখার বাস্তবায়নে চাঁদপুর সদর উপজেলার বাগাদী ইউনয়নের পশ্চিম সকদী গ্রামে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে পুনর্বসানের জন্য দু’টি ঘর হস্তান্তরকালে সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
জেলা প্রশাসক আরো বলেন, সারাদেশের গৃহ নির্মাণ কাজের আওতায় চাঁদপুর জেলায় প্রথম পর্যায়ে ১১৫টি গৃহহীন পরিবারের মাঝে গৃহ হস্তান্তর করেছি। এবার আমরা ১২৪টি গৃহহীন পরিবারে ঘর হস্তান্তর করব। কিন্তু এসব ঘরের বাহিরে এডমিনিস্ট্রেটিভ পরিবারের পক্ষ থেকে এ দু’টি ঘর করে দেয়া হয়েছে।
জেলা প্রশাসক বলেন, যখন প্রাকৃতিক দুর্যোগ হয় তখন পরিবারগুলো খুবই কষ্টের মধ্যে থাকতে হয়। কিন্তু ন্যূনতম একটি ঘর থাকলে মাথা গোজার ঠাঁই হয় এবং সন্তানরা থাকতে পারে। এ ধরনের চিন্তা থেকেই এডমিনিস্ট্রেটিভ পরিবারের পক্ষ থেকে এ দু’টি ঘর করে দেয়া হয়েছে।
চাঁদপুর স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ জামানের পরিচালনায় আরো বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর প্রেসক্লাব সভাপতি ইকবাল হোসেন পাটওয়ারী ও বাগাদী ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ বেলায়েত হোসেন গাজী বিল্লাল।
অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মো. দাউদ হোসেন চৌধুরী, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মো. ইমতিয়াজ হোসেন, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার সানজিদা শাহনাজ (স্মৃতি), সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. হেলাল, সহকারি কমিশনার ও নির্বাহী মেজিস্ট্রেটেট মো. ছামিউল ইসলাম, এনডিসি মো. মেহেদী হাসান মানিক, অলিদুজ্জামান, আজিজুন্নাহার, মো. উজ্জল হোসেন, মো. ইবনে আল জায়েদ হোসেন, ইমরান মাহমুদ ডালিম, সেলিনা আক্তার, আবিদা সিফাত, মঞ্জুরুল মোর্শেদ, কাজী মো. মেশকাতুল ইসলাম, এআরএম জাহিদা হাসান, রেশমা খাতুন, রিক্তা খাতুন ও দেবযানী কর।
অনুষ্ঠানের গৃহহীন আব্দুল কাদের ও মো. হাসান মিয়ার কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে ঘরের চাবি ও ঈদ সামগ্রী তুলে দেন জেলা প্রশাসকসহ কর্মকর্তারা।

১১ মে, ২০২১।